আজ বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২১, ০৭:২৪ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলা নির্বাচনী সংহিসতায় হলতা-গুলিশাখালী ইউনিয়নের জনি তালকুদার  (২৫) নামে এক যুবককে কুপিয়ে হত্যা করেছে প্রতিপক্ষ।
সোমবার সকালে হলতা-গুলিশাখালী ইউনিয়নের কবুতরখালী গ্রামের বিলের পাড়ে প্রতিপক্ষের সন্ত্রাসীরা তার উপর হামলা করে বলে জানান মঠবাড়িয়া থানার ওসি শওকত হোসেন।
নিহত জনি তালুকদার মঠবাড়িয়া উপজেলার হলতা-গুলিশাখালী ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবকলীগের সহ-সভাপতি ও ইউনিয়নের কবুতরখালী গ্রামের হাতেম আলী তালুকদারের ছেলে।
মঠবাড়িয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) এম.আর শওকত হোসেন জানান, নির্বাচনী বিরোধে জনিকে হত্যা করেছে নৌকা প্রতীকের লোকজন।
ওসি আরো জানান, সোমবার সকাল ৯টার দিকে গুলিশাখালী ইউনিয়নের কবুতরখালী এলাকার আলমগীর মিয়ার বাড়ির সামনে  জনি তালুকদার দাড়িয়ে ছিলেন। এমন সময় ২০/২৫ জন সন্ত্রাসীরা তাকে আক্রমণ করে। সন্ত্রাসীদের দেখে জনি তালুকদার দৌড়ে পালানোর চেষ্টা করে। সন্ত্রাসীদের ধাওয়া খেয়ে পাশে বিলের মধ্যে জনি তালুকদার পড়ে গেলে সন্ত্রাসীরা এসময় তাকে এলোপাথাড়ি কুপিয়ে চলে যায়। পরে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দিলে মঠবাড়িয়া থানা পুলিশ তাকে উদ্ধার করে মঠবাড়িয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠায় । সেখানে অবস্থার অবনতি হলে উন্নতর চিকিৎসার জন্য বরিশাল শেরে বাংলা মেডিকেল কলেজে পাঠানো হলে দুপুর ১ টার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সেখানে  জনি মারা যায়।
মঠবাড়িয়া উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান নির্বাচনে ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী  আরিফুর সিফাত অভিযোগ করেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠন্কি সম্পাদক রফিকুল ইসলাম রিপন ও  উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ও ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী সকিল আহমেদ নওরোজ এর নেতৃত্বে জনির উপর হামলা চালানো হয়েছে ।
তবে এ ঘটনার সাথে নৌকার সমর্থকরা জড়িত নয় বলে জানিয়েছেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি রফিউদ্দিন ফেরদৌস।
0Shares

 
 
 

আরও পড়ুন

 

Top