শিরোনাম

আজ রবিবার, ০৫ এপ্রিল ২০২০, ০৩:১২ অপরাহ্

বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে দুই শর্তে ছয় মাসের জন্য কারামুক্তি দেওয়া হয়েছে। তার সাজা স্থগিত থাকায় অন্য বন্দির মত তিনি স্বাভাবিক চলাচলের সুযোগ পাবেন না। নিজ বাড়িতেই সীমাবদ্ধ থাকতে হবে সাবেক এই প্রধানমন্ত্রীকে। মঙ্গলবার বিকালে এক সংবাদ সম্মেলনে খালেদা জিয়াকে মুক্তি দিতে সরকারের এ সিদ্ধান্তের কথা জানান আইনমন্ত্রী আনিসুল হক।

তিনি বলেন, মানবিক দিক বিবেচনায় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে দুই শর্তে খালেদা জিয়াকে মুক্তি দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। খালেদা জিয়া বাসায় থেকে চিকিৎসা নেবেন এবং বিদেশ যেতে পারবেন না এমন শর্তে তাকে মুক্তির সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, একটা কথা পরিষ্কারভাবে বলতে চাই, এখানে বলা হচ্ছে না যে তিনি হাসপাতালে গিয়ে চিকিৎসা নিতে পারবেন না।

কিন্তু হাসপাতালে ভর্তির ব্যাপারে তার কন্ডিশনের ওপরে দেখা যাবে, সেজন্যই কথাটা উল্লেখ করা হয়েছে যে, বাসায় থেকে তিনি চিকিৎসা গ্রহণ করবেন।

আর এ কারণে খালেদা জিয়াকে বয়স বিবেচনায় মানবিক কারণে সরকার সদয় হয়ে সাজা স্থগিত রাখার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে। তিনি বলেন, তার সাজাটা স্থগিত করা হয়েছে ফৌজদারি কার্যবিধির ৪০১ ধারায় উপধারা (১) অনুযায়ী। এক প্রশ্নের জবাবে বলেন, তিনি হাসপাতালে নিশ্চয়ই যেতে পারবেন।

কিন্তু হাসপাতালে যদি ভর্তি হতে হয়, তাহলে বাংলাদেশের সবচেয়ে মানসম্পন্ন হাসপাতাল (বঙ্গবন্ধু  শেখ মুজিব মেডিকেল) সেখানে তো তিনি আছেনই।

সেখানে তো তার চিকিৎসা চলছেই। সেখানে ভর্তি হতে হবে, সেটা অবস্থার পরিপ্রেক্ষিতে বোঝা যাবে, কিন্তু শর্ত হচ্ছে, তিনি ঢাকাস্থ নিজ বাসায়  থেকে চিকিৎসা গ্রহণ করবেন। আইনমন্ত্রী বলেন, এই সময়ে তিনি দেশের বাইরে গমন করতে পারবেন না।

শর্ত দুটির বিষয়ে আইনমন্ত্রী বলেন, খালেদা জিয়ার সাজা স্থগিত থাকাবস্থায় তাকে ঢাকাস্থ নিজ বাসায় থেকে চিকিৎসা গ্রহণ করতে হবে। তবে চিকিৎসার প্রয়োজনে তিনি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে (বিএসএমএমইউ) যেতে পারবেন। এছাড়া সাজা স্থগিত থাকাকালীন খালেদা জিয়া চিকিৎসা বা অন্য কোনো প্রয়োজনে দেশের বাইরে যেতে পারবেন না।

এদিকে দুদকের আইনজীবী খুরশীদ আলম খান সাংবাদিকদের বলেন, সরকার যে ধারায় খালেদা জিয়ার সাজা স্থগিত করেছে সেখানে দুটি শর্ত উল্লেখ করা হয়েছে। তাই তিনি চাইলেই সাজা স্থগিত থাকা অন্যান্য আসামির মতো চলাচল করতে পারবেন না। সরকারের বেঁধে দেওয়া দুটি শর্তের মধ্যেই তার সবকিছু সীমাবদ্ধ থাকবে।

খালেদা জিয়ার অন্যতম আইনজীবী খন্দকার মাহবুব হোসেন সাংবাদিকদের বলেন, সাজা স্থগিত থাকাবস্থায় পুলিশি নিরাপত্তার কোনো বিধান আইনে নেই। তবে নিরাপত্তাজনিত কারণে খালেদা জিয়ার জন্য পুলিশি নিরাপত্তা রাখা হবে।

 
 
 

আরও পড়ুন

 

Top